মসলিনের বাণিজ্যিক উৎপাদনের পরিকল্পনা সরকারের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
১৩ জানুয়ারি ২০২১, বুধবার
প্রকাশিত: ১১:২৪

মসলিনের বাণিজ্যিক উৎপাদনের পরিকল্পনা সরকারের

দীর্ঘ ৬ বছর চেষ্টার পর ‘মসলিন’ বুনতে সক্ষম হয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যায়লের (রাবি) শিক্ষকের নেতৃত্বে একটি বিশেষজ্ঞ কমিটি। এরপরই বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী জানান, এবার দেশের এই ঐতিহ্যবাহী মসলিনের বাণিজ্যিক উৎপাদনের পরিকল্পনা নিচ্ছে সরকার।

সম্প্রতি রাবিতে ‘মসলিন প্রযুক্তি পুনরুদ্ধার প্রকল্প’ শীর্ষক গবেষণার অগ্রগতি পর্যালোচনা সভায় মন্ত্রী বলেন, ‘প্রথমে একটু সংশয় ছিল, এর সুতা এতো সূক্ষ্ম যে শুরুতে তো তোলাই খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিলো না। তবে শেষ পর্যন্ত সফল হয়েছেন গবেষকেরা। আশা করি, মুজিববর্ষের উপহার হিসেবে প্রধানমন্ত্রীর হাতে মসলিন তুলে দিয়ে তাঁর স্বপ্ন পূরণ করতে পারবো।’

এর আগে, ২০১৪ সালের অক্টোবরে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয় পরিদর্শনের সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মসলিনের ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনার কথা বলেন। বাংলাদেশের কোন কোন এলাকায় মসলিন সুতা তৈরি হতো, তা জেনে সে প্রযুক্তি উদ্ধারের নির্দেশনা দেন প্রধানমন্ত্রী। এ নির্দেশনা বাস্তবায়নের লক্ষ্যে বাংলাদেশে তাঁত বোর্ডের চেয়ারম্যানকে আহ্বায়ক করে ৭ সদস্যের একটি বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করা হয়।

কমিটির অপর সদস্যরা হচ্ছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক মো. মনজুর হোসেন, বাংলাদেশ টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক শাহ আলীমুজ্জামান, বাংলাদেশ তুলা উন্নয়ন বোর্ডের অতিরিক্ত পরিচালক মো.আখতারুজ্জামান, বিটিএমসি ঢাকার মহাব্যবস্থাপক মাহবুব-উল-আলম, বাংলাদেশ তাঁত বোর্ডের উপমহাব্যবস্থাপক এ এস এম গোলাম মোস্তফা ও সদস্যসচিব করা হয় তাঁত বোর্ডের জ্যেষ্ঠ ইনস্ট্রাক্টর মো. মঞ্জুরুল ইসলামকে।

পরে গবেষণাকাজের স্বার্থে আরও ৭ সদস্যকে এই কমিটিতে যুক্ত করা হয়। তারা হলেন- ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক বুলবন ওসমান, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক এম ফিরোজ আলম, অ্যাগ্রোনমি অ্যান্ড অ্যাগ্রিল বিভাগের অধ্যাপক মো. মোস্তাফিজুর রহমান, বাংলাদেশ তাঁত বোর্ডের প্রধান পরিকল্পনা কর্মকর্তা মো. আইয়ুব আলী ও বাংলাদেশ রেশম গবেষণা ও প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট রাজশাহীর গবেষণা কর্মকর্তা মো. আবদুল আলিম।

উল্লেখ্য, প্রায় দুইশো বছর আগে বিশ্বজুড়ে রাজত্ব ছিল মিহি সুতিবস্ত্র ‘ঢাকাই মসলিনের’। তবে বিভিন্ন কারণে প্রায় ১৭০ বছর আগে বাংলাদেশের ভৌগোলিক নির্দেশক এই পণ্যটি হারিয়ে যায়।

ব্রেকিংনিউজ/বিবি/এমআর

breakingnews.com.bd
সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: মাইনুল ইসলাম
 শারাকা ম্যাক, ২ এইচ-প্রথম তলা, ৩/১-৩/২ বিজয় নগর, ঢাকা-১০০০
 টেলিফোন : ০২-৯৩৪৮৭৭৪-৫, ইমেইল : breakingnews.com.bd@gmail.com
 নিউজরুম হটলাইন : ০১৬৭৮-০৪০২৩৮, ০২-৮৩৯১৫২৪
 নিউজরুম ইমেইল : bnbdcountry@gmail.com, bnbdnews.reporter@gmail.com
সম্পাদক ও প্রকাশক : মো: মাইনুল ইসলাম
 শারাকা ম্যাক, ২ এইচ-প্রথম তলা,
  ৩/১-৩/২ বিজয় নগর, ঢাকা-১০০০
 টেলিফোন : ০২-৯৩৪৮৭৭৪-৫,
 ইমেইল : breakingnews.com.bd@gmail.com
 নিউজরুম হটলাইন : ০১৬৭৮-০৪০২৩৮, ০২-৮৩৯১৫২৪
 নিউজরুম ইমেইল : bnbdcountry@gmail.com, bnbdnews.reporter@gmail.com
© ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | ব্রেকিংনিউজ.কম.বিডি