মশা থেকে রেহাই পেতে চান সিলেটবাসী

মুহাজিরুল ইসলাম রাহাত, সিলেট
৫ মার্চ ২০২১, শুক্রবার
প্রকাশিত: ১১:২১ আপডেট: ০৮:৩৭

মশা থেকে রেহাই পেতে চান সিলেটবাসী

ঋতু বদলের সঙ্গে সঙ্গেই সিলেট নগরীতে মশার উৎপাত বেড়েছে। বাসাবাড়ি কিংবা খোলা জায়গা সবখানেই মশার রাজত্ব! দিনে-রাতে পাল্লা দিয়েই কামড়াচ্ছে মশা। হঠাৎ করে মশার এমন উৎপাত বাড়ায় অতিষ্ঠ নগরবাসী। নগরবাসীর অভিযোগ, সিটি করপোরেশন সময় সময় স্প্রে করলেও মশার উপদ্রব কমাতে স্থায়ী কোনো পদক্ষেপ নিচ্ছে না।

আর সিলেট সিটি করপোরেশন কতৃপক্ষ বলছে, মশার উপদ্রব কমাতে নেয়া হয়েছে বিশেষ পদক্ষেপ। ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে চলছে ড্রেন, নালা, নর্দমার ময়লা-আবর্জনা পরিস্কারের কাজ। আগামী রবিবার থেকে ফগার মেশিন দিয়ে মশা নিধন কার্যক্রম শুরু হবে। তারপরই চলতি মাসেই নগরীতে একযুগে তিন হাজার লিটার মশার ঔষধ ছিটানো হবে।

এদিকে সন্ধ্যার আগেই নগরীর বাসাবাড়ির দরজা-জানালা বন্ধ করেও মশার কামড় থেকে রেহাই পাওয়া যাচ্ছে না। একই দশা দোকানপাট কিংবা খোলা জায়গায়ও। সবখানে মশার উপদ্রপ বেড়েছে।

নগরবাসী বলছেন, দিনের বেলা চায়ের দোকান কিংবা খোলা জায়গায়ও কামড়াচ্ছে মশা। কয়েলের ধোঁয়া কিংবা স্প্রেতেও মরছে না মশা! বাসাবাড়িতে অনেকে দিনের বেলায় মশারি টানিয়ে মশার অত্যাচার থেকে রেহাই পাওয়ার চেষ্ঠা করছেন। দিনের বেলা বাচ্চাদেরও মশারি টানিয়ে ঘুম পাড়াতে হচ্ছে!

মশার যন্ত্রণায় অতিষ্ঠ নগরের শিবগঞ্জ এলাকার বাসিন্দা সিলেট বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি কলেজের সহকারি অধ্যাপক আলী জেসন বলেন, বিকেল থেকেই মশার উপদ্রব শুরু হয়। মশার যন্ত্রণায় মানুষ অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে। এছাড়া নগরের বিভিন্ন মাঠের পাশে ময়লা-আবর্জনার স্তুপ জমে থাকার কারণে মশার উপদ্রব বাড়ছে। এতে সবচেয়ে বেশী ভুক্তভোগী হচ্ছে এলাকার শিশুরা। এ বিষয়ে দ্রুত সিটি করপোরেশনের কার্যকর ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানান তিনি। 

নগরের আখালিয়া এলাকার বাসিন্দা গৃহিণী শাহানা আক্তার বলেন, মশার চরম অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছি। কোথাও এক মিনিটও নিরাপদে বসা যাচ্ছে না। মশার উৎপাত এতোটাই বেশি যে, দরজা-জানালা খুলে রাখার উপায় নেই। মশক নিধনে সিটি করপোরেশনের তৎপরতায় অখুশি তিনি।

সিলেট সিটি করপোরেশনের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. মো. জাহিদুল ইসলাম ব্রেকিংনিউজকে বলেন, ‘আমাদের পরিচ্ছন্নতা অভিযান চলছে। ইতোমধ্যে পাঁচটি ওয়ার্ডে ড্রেন, নালা, নর্দমার ময়লা-আবর্জনা পরিস্কার করা হচ্ছে। রবিবারের মধ্যেই ফগার মেশিন দিয়ে মশক নিধন অভিযান শুরু হবে। এরপর চলতি মাসেই ঔষধ ছিটানোর কাজ শুরু হবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘শুধু মশার ঔষধ ছিটালেই হবে না। একই সাথে নগরীর ছড়া-নালা পরিষ্কার করতে হবে। কারণ একটি মশা মাত্র পাঁচ দিন বাঁচে। কিন্তু এই পাঁচ দিনে মশা প্রচুর পরিমাণে বংশ বৃদ্ধি করে। সেই জন্য নগরবাসীর সহযোগিতায় নগরীকে পরিষ্কার ও পরিছন্ন রাখতে হবে। এতে করে মশার বংশ বৃদ্ধি রোধ হবে।’

ব্রেকিংনিউজ/নিহে

bnbd-ads
breakingnews.com.bd
প্রকাশক : মো: মাইনুল ইসলাম
 শারাকা ম্যাক, ২ এইচ-প্রথম তলা, ৩/১-৩/২ বিজয় নগর, ঢাকা-১০০০
 টেলিফোন : ০২-৯৩৪৮৭৭৪-৫, ইমেইল : breakingnews.com.bd@gmail.com
 নিউজরুম হটলাইন : ০১৬৭৮-০৪০২৩৮, ০২-৮৩৯১৫২৪
 নিউজরুম ইমেইল : bnbdcountry@gmail.com, bnbdnews.reporter@gmail.com
প্রকাশক : মো: মাইনুল ইসলাম
 শারাকা ম্যাক, ২ এইচ-প্রথম তলা,
  ৩/১-৩/২ বিজয় নগর, ঢাকা-১০০০
 টেলিফোন : ০২-৯৩৪৮৭৭৪-৫,
 ইমেইল : breakingnews.com.bd@gmail.com
 নিউজরুম হটলাইন : ০১৬৭৮-০৪০২৩৮, ০২-৮৩৯১৫২৪
 নিউজরুম ইমেইল : bnbdcountry@gmail.com, bnbdnews.reporter@gmail.com
© ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | ব্রেকিংনিউজ.কম.বিডি