শিরোনাম:

ক্লাসে ফিরে যাওয়ার আহ্বানে তুলোধুনো সাকিব

নিউজ ডেস্ক
৩ আগস্ট ২০১৮, শুক্রবার
প্রকাশিত: 9:15 আপডেট: 12:04
ক্লাসে ফিরে যাওয়ার আহ্বানে তুলোধুনো সাকিব

রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কে বাস চাপায় ২ শিক্ষার্থী নিহত হওয়ার ঘটনায় আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ক্লাসে ফিরে পড়াশোনায় মনোনিবেশ দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক সাকিব আল হাসান।
 
তার এই আহ্বানে সামাজিক মাধ্যমে তীব্র সমালোচনার ঝড় বয়ে যাচ্ছে।

সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকে এই আহ্বান সম্বলিত পোস্টটি শুক্রবার বিকেলে পোস্ট করার সঙ্গে সঙ্গে এটি শত শত শেয়ার ও মন্তব্য  আসতে থাকে।

সাকিব তার পোস্টে বলেন, ‘আমি এখন ফ্লোরিডায় আছি। আজ এক গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্তে আমার তরুণ ফ্যানদের উদ্দেশ্যে কিছু বলতে চাই।

গত ২৯ জুলাই রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কে বাস চাপায় দুই স্কুল শিক্ষার্থী দিয়া ও আবদুল করিম নিহত হওয়ার ঘটনায় আমি প্রচণ্ড মর্মাহত ছিলাম। কিন্তু যখন দেখলাম তার সহপাঠী থেকে শুরু করে সারাদেশের ছাত্রছাত্রীরা দোষীদের শাস্তি দাবি ও নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলন শুরু করেছে, তখন গর্ববোধ করেছি বাংলাদেশের একজন নাগরিক হিসেবে। দেশে থাকলে আমিই তোমাদের অটোগ্রাফ নেয়ার জন্য চলে আসতাম।

তোমাদের সাধুবাদ জানিয়ে বলতে চাই, তোমাদের দাবি কার্যকর হচ্ছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নিহত পরিবারকে আর্থিক সহায়তা ছাড়াও নিরাপদ সড়ক আইন করতে আন্তরিকভাবে কাজ করছেন। ইতোমধ্যে অভিযুক্ত পরিবহনের রুট পারমিট বাতিল সহ পাঁচ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

এ অবস্থায় তোমাদের কাছে বিনীত অনুরোধ করবো, ক্লাসে ফিরে পড়াশোনায় মনোনিবেশ করতে। তোমরা যা করেছ তা এদেশে ইতিহাস হয়ে থাকবে। এ অর্জন সফল হবে তোমাদের পড়ার টেবিলে ফিরে যাওয়ার মাধ্যমে। তোমাদের দাবি পূরণ হয়েছে এবং হচ্ছে। ব্যযত্য।য় ঘটলে আমাকে পাবে তোমাদের সাথে।


তামান্না বৃষ্টি নামি একজন ইউজার মন্তব্য করেছেন, ‘লেখা টা কি আপনি নিজে লিখেছেন? নাকি শুধু কপি পেস্ট করে দিয়েছেন। কপি করে ছক্কা মেরে দিয়েছেন নিজের ইজ্জত এর। ফালতু মার্কা সহানুভূতি। ক্লাস যাব পড়াশোনা করতে কিন্তু ফিরতে হয় লাশ হয়ে... নিজের পরিবারের কেউ হলে ও এমন বলতেন নাকি??’

এমডি ওবায়দুল্লাহ নামে একজন মন্তব্য করেছেন, ‘ভাই বুঝলাম এমপি পদে নোমিনেশন পাওয়া লাগবো, তাই বইলা চামচামির জন্য এইরকম *** মার্কা পলিসি ইউস করলেন কেন? আমার সাথে কন্টাক্ট করেন, চামচামি করবেন বাট কেও বুঝবো না- এমন পলিসি শিখাই দিবো আসেন।’

এবি করিম সুমন নামে আরেকজন বলেন, ‘মন্ত্রী হওয়ার পথে একধাপ এগিয়ে গেলেন দেশের সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।’

আবির হোসাইন অনিক নামে একজন বলেন, ‘এমপি মন্ত্রীদের চামচামি না কইরা ভালোমত খেলেন। শুনলাম আমেরিকার নাগরিকত্ব নিয়া নিসেন। ওইখানেই থাকেন। আমাদের দেশ নিয়া আমাদেরই ভাবতে দিন। আর ছাত্ররাই সিদ্ধান্ত নিবে তারা কবে ক্লাসে ফিরে পড়ালেখায় মনোনিবেশ করবে। এইসব দাবি মেনে নেবার মূলা ঝুলিয়ে আমাদের আর বোকা বানাতে পারবেন না। এর চেয়ে নিজের খেলায় মনোযোগ দেন। অলরেডি প্রথম টি টুয়েন্টিতে সোদা খাইসেন।’

গত ২৯ জুলাই দুপুরে রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালের অদূরে বিমানবন্দর সড়কে বাসচাপায় রমিজউদ্দিন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের দুই শিক্ষার্থী নিহত হয়। ওই দিন দুপুর সাড়ে ১২টায় বিমানবন্দর সড়কের বাঁ-পাশে বাসের জন্য অপেক্ষা করার সময় জাবালে নূর পরিবহনের একটি বাস তাদের চাপা দিলে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলো দিয়া খানম মীম ও আব্দুল করিম। এ সময় বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থী গুরুতর আহত হয়। পথচারীরা সঙ্গে সঙ্গে আহতদের নিকটস্থ কুর্মিটোলা হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখান থেকে গুরুতর আহত কয়েকজনকে সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) ভর্তি করা হয়।

এ খবর ছড়িয়ে পড়লে বিক্ষুব্ধ হয়ে ওঠে কলেজের শিক্ষার্থীরা। তারা জাবালে নূর পরিবহনের ওই বাসে আগুন ধরিয়ে দেয় ও শতাধিক বাস ভাঙচুর করে। পরে অতিরিক্ত পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে।

ব্রেকিংনিউজ/আরএ

Ads-Sidebar-1
Ads-Sidebar-1
সর্বাধিক পঠিত
Ads-Sidebar-1
Ads-Sidebar-1
Ads-Bottom-1
Ads-Bottom-2