Ads-Top-1
Ads-Top-2

রাবির ভর্তি পরীক্ষায় নতুন পদ্ধতি, দ্বিধায় ভর্তিচ্ছুরা

সাঈদ সজল, রাবি প্রতিনিধি
১০ জুলাই ২০১৮, মঙ্গলবার
প্রকাশিত: 09:48:00
রাবির ভর্তি পরীক্ষায় নতুন পদ্ধতি, দ্বিধায় ভর্তিচ্ছুরা

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০১৮-১৯ সেশনের ভর্তি পরীক্ষার পদ্ধতি নিয়ে দ্বিধা-দ্বন্দ্বে পড়েছে ভর্তিচ্ছুরা। এর আগে ৬ জুলাই রাবি উপাচার্য এম আব্দুস সোবহান এমসিকিউ পদ্ধতিতে সত্যিকার মেধা যাচাই হয় না, যুক্তি দেখিয়ে এমসিকিউ বাতিল করে লিখিত পরীক্ষা নেয়ার ঘোষণা দেন। উপাচার্য আরও জানান, প্রাথমিক আবেদনকারীদের মধ্য থেকে বাছাই করে নির্দিষ্ট সংখ্যক শিক্ষার্থীকে ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ দেয়া হবে।
 
এছাড়া বর্তমানে দেশের অনেক বিশ্ববিদ্যালয় ২য় বার ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ বাতিল করেছে। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়সহ আরো কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয়ে শুধুমাত্র দ্বিতীয়বার ভর্তির সুযোগ রয়েছে। যে কারণে যেসব শিক্ষার্থী দ্বিতীয়বার ভর্তি প্রতিযোগীতায় অংশ নিতে ইচ্ছুক তাদেরকে আবার লিখিত পরীক্ষার জন্য নতুন করে প্রস্তুতি নিতে হবে।
 
পূর্বে রাবির ভর্তি পরীক্ষায় আবেদনের জন্য নির্দিষ্ট রেজাল্ট প্রয়োজন হতো। কিন্তু পরে ভর্তি পরীক্ষার ফলের সাথে রেজাল্টের কোন নম্বর যোগ করা হতো না। যে কারণে যেসব মেধাবী শিক্ষার্থী উচ্চ মাধ্যমিকে রেজাল্ট ভাল করতে পারেনি তারাও ভাল প্রস্তুতি নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হতে পারতেন। কিন্তু এবার যদি ফলাফলের ভিত্তিতে প্রাথমিক বাছাই করা হয়, তাহলে ঐসকল মেধাবী শিক্ষার্থী প্রতিযোগীতা করারই সুযোগ পাবে না।

ঝিনাইদহ সদরের পলাশ কুমার নামে এক অভিভাবক রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে এবার কি ধরনের প্রশ্ন হবে, সিলেবাস কতটুকু, কারা পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবে এ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন।

রংপুরের বদরগঞ্জ থানার রিপন খান নামে এক ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী বলেন, ‘গতবারের থেকে এবার রেজাল্ট তুলনামূলক খারাপ হয়েছে। এখন আবার যদি রেজাল্টের ভিত্তিতে প্রাথমিক বাছাই করা হয় তাহলে ২য় বার পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ বাতিল করা উচিত বলে মত প্রকাশ করেন।’

রাজশাহীর বাঘার ভর্তিচ্ছু এহিয়া মাসুদ ইমন অভিযোগ করে বলেন, ‘জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে আরও ৬ মাস আগে লিখিত পরীক্ষার কথা জানানো হয়েছে। কিন্তু রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে মাত্র কয়েকদিন আগে জানানো হয়েছে। ফলে পরীক্ষা নিয়ে এখন আমাদের নতুন করে ভাবতে হচ্ছে।’

নওগা ধামুরহাটের ভর্তিচ্ছু ঝর্ণা হাসদা বলেন, ‘মেয়ে হওয়ায় আমাকে বাড়ি থেকে দূরে পরীক্ষা দিতে যেতে দিতে চায়না পরিবার। তাই রাবি’তে ভর্তি হওয়াই আমার প্রথম টার্গেট। কিন্তু এভাবে হঠাৎ লিখিত পরীক্ষার ঘোষণা আসায় বিভ্রান্তিতে পড়েছি।’

ব্রেকিংনিউজ/এসএএফ

Ads-Sidebar-3
Ads-Sidebar-3
Ads-Sidebar-3
Ads-Top-1
Ads-Top-2