Ads-Top-1
Ads-Top-2

শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাখ্যান কর‌লেন শিক্ষকরা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
১২ জুন ২০১৮, মঙ্গলবার
প্রকাশিত: 11:31:00 আপডেট: 11:35:00

‘বাজেটে নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের কোনো বাজেট না থাকলেও তাদের এমপিওভুক্ত করা হবে’- সোমবার (১১ জুন) শিক্ষামন্ত্রীর দেয়া এমন বক্তব্য প্রত্যাখ্যান করেছেন নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান শিক্ষকরা।

মঙ্গলবার (১২ জন) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে অবস্থান কর্মসূচি চলাকালীন সময়ে শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাখ্যান করেন তারা।

শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের সভাপতি অধ্যক্ষ গোলাম মাহমুদুন্নবী ডলার বলেন, ‘২০১৮- ১৯ অর্থ বছরে প্রস্তাবিত বাজেটে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির বিষয়ে সুনির্দিষ্ট দিক-নির্দেশনা নেই। আমাদের জন্য বাজেটে কোনো বরাদ্দ রাখা হয়নি। এতে আমরা হতাশ।’

তি‌নি বলেন, ‘এরই ম‌ধ্যে আমরা জানতে পারি শিক্ষামন্ত্রী পূর্বের মত বলেছেন বাজেটের টাকা না থাকলেও পর্যায়ক্রমে এমপিওভুক্ত করা হবে। কিন্তু আমরা তার এ বক্তব্য প্রত্যাখ্যান করছি। সুনির্দিষ্ট কোনো গেজেট প্রকাশ না হলে আমরা আমাদের আন্দোলন চালিয়ে যাব।’

শিক্ষক মো. মাহবুব আলম নাসির বলেন, ‘গত রবিবার সকালে আমরা প্রেসক্লাবের সামনে অবস্থান কর্মসূচি করতে আসলে পুলিশের বাধার সম্মুখীন হই এবং আমাদের সংগঠনের সভাপতি অধ্যাপক গোলাম মাহমুদুন্নবী ডলার এবং সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ ড বিনয় ভূষণ রায়কে অবস্থান ধর্মঘট প্রত্যাহার করার জন্য গ্রেফতার করে নিয়ে যান পরে তাদেরকে ছে‌ড়ে দেন।’

তিনি বলেন, ‘আমাদেরকে গতকালও বস‌তে দেয়নি আজ কিছু সময়ের জন্য বস‌তে দিয়েছে তবে পুলিশ আমাদের যত বাধাই দিক না কেন আমরা অবস্থান ধর্মঘট চালিয়ে যাব।’

এমপিওভুক্তির দাবিতে নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-কর্মচারীরা গত বছরের ২৬ ডিসেম্বর থেকে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে লাগাতার কর্মসূচি শুরু করেন। নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের ডাকে টানা ওই অবস্থান ও অনশনের একপর্যায়ে গত ৫ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে তাঁর ততকালীন একান্ত সচিব সাজ্জাদুল হাসান সেখানে গিয়ে আশ্বাস দেন। এরপর শিক্ষক-কর্মচারীরা আন্দোলন কর্মসূচি স্থগিতের ঘোষণা দেন। এরপর সরকারের বিভিন্ন পর্যায় থেকে বলা হয়েছে আসন্ন অর্থ বছরে নতুন বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত করা হবে।’ 

কিন্তু অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত গত বৃহস্পতিবার ২০১৮-২০১৯ অর্থ বছরের যে বাজেট প্রস্তাব করেন, সেখানে তিনি নতুন এমপিওভুক্তির বিষয়ে সুস্পষ্টভাবে কিছু বলা হয়নি।

এবারের বাজেটে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের দুই বিভাগের জন্য ৫৩ হাজার ৫৪ কোটি টাকা বরাদ্দের প্রস্তাব করা হয়েছে। এটি প্রস্তাবিত জাতীয় বাজেটে খাতওয়ারি দ্বিতীয় সর্বোচ্চ বরাদ্দ। বাজেট বরাদ্দে প্রাথমিক বিদ্যালয়, কারিগরি প্রতিষ্ঠান ও অবকাঠামো নির্মাণে গুরুত্ব দেয়া হয়েছে।

ব্রেকিংনিউজ/ এএইচএস/ এসএ 

Ads-Sidebar-3
Ads-Sidebar-3
সর্বাধিক পঠিত
Ads-Sidebar-3
সর্বশেষ খবর
Ads-Sidebar-3
Ads-Top-1
Ads-Top-2