Ads-Top-1
Ads-Top-2

অসময়ে ইঁদুর, উদ্বিগ্ন কৃষক

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, খুলনা
১ মার্চ ২০১৮, বৃহস্পতিবার
প্রকাশিত: 09:05:00 আপডেট: 12:00:00
অসময়ে ইঁদুর, উদ্বিগ্ন কৃষক

খুলনায় এবার লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বোরো আবাদ বেশি হয়েছে। মাঠজুড়ে সবুজ ধানের দোলা, সন্ধ্যায় কোথাও সবুজের মাঝে উঁকি দিচ্ছে রূপালি শিশির বিন্দু। এক বুক আশা নিয়ে যখন কৃষক মাঠের ভালো ফলনের স্বপ্ন দেখছেন, তখনই সে স্বপ্ন যেন মিলিয়ে যেতে বসছে ইঁদুরের লাগাতার উপদ্রবে।
 
অন্য সময়ে ধানে পাক ধরলে ইঁদুরের উপদ্রব দেখা দিলেও এবার রোপনের সাথে সাথে কাচা ধানগাছে ইঁদুরের আক্রমণ হচ্ছে। বোরো চাষীরা ইঁদুরের উৎপাত থেকে রেহাই পেতে ধানক্ষেতের চারিদিকে পলিথিনের বেড়া দিয়ে ইঁদুর আটকানোর চেষ্টা করছে।
 
ডুমুরিয়া উপজেলার গুটুদিয়া ইউনিয়নের ভেলকামারি ও টিয়াবুনিয়া মৌজায় বোরোর ক্ষেতে গিয়ে দেখা যায়, ইঁদুরে কেটে দেয়া কাঁচা ধানগাছগুলো সরিয়ে ফেলছেন কৃষকরা। সেখানে আবার ধানের চারা রোপন করবেন বলে জানালেন বেরো চাষী শেখ শহিদুল ইসলাম।
 
সাহাব উদ্দিন নামে এক চাষী (৬৫) বলেন, ‘আমার চার বিঘা বোরো ক্ষেতের রোপন করা ধানে ইঁদুরের আক্রমণ হয়েছে। ইঁদুর যেভাবে কচি ধান গাছ কাটছে, এত বিষ দিচ্ছি কিন্তু কোনো কাজ হচ্ছে না’।
 
তিনি আরও বলেন, ‘২০ বছর থেকে কৃষিকাজ করছি, একটু আধটু ইঁদুরে কেটে ধান নষ্ট করে। কিন্তু এবার শিষ ফুটেনি তাতেই কাটছে, তবে এত বেশি কোনোবারই কাটেনি।’

শোভনা গ্রামের বোরো চাষী রফিকুল ইসলাম জানান, জমিতে বিষ দিয়েও তেমন উপকার হচ্ছে না, উল্টো খালে বা পুকুরে বিষের পানি ঢুকে মাছ মরে যাচ্ছে।
 
ডুমুরিয়া উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ নজরুল ইসলাম বলেন, ‘কৃষকদের ইঁদুর উপদ্রব থেকে বেশ কিছু পদ্ধতি অবলম্বনের পরামর্শ দিচ্ছি। প্রথমত তারা বিষটোপ ব্যবহার করতে পারে, এছাড়াও মরিচের গুঁড়া ইঁদুরের গর্তে দেয়া, ক্ষেতে ধূপ বা অন্য কিছু দিয়ে ধোঁয়া তৈরি করলে সুফল পেতে পারেন কৃষকরা। এছাড়া পলিথিন টানিয়ে দিলে বাতাসের শব্দে ইঁদুর পালিয়ে যায়।’
 
খুলনা জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মো. আব্দুল কাউয়ুম জানান, জেলায় এবার বোরো ধানের আবাদ হয়েছে ৫৮ হাজার ১৬০ হেক্টের (১ হেক্টর = ২.৪৭ একর) জমিতে। এবার বোরো চাষের টার্গেট ছিল ৫১ হাজার ৮২৪ হেক্টর জমি। সবচেয়ে বেশি আবাদ হয়েছে জেলার ডুমুরিয়া উপজেলায়। এ উপজেলায় ২১ হাজার হেক্টর জমিতে বোরোর আবাদ হয়েছে।
 
ব্রেকিংনিউজ/হেদায়েত/পিআর

Ads-Sidebar-3
Ads-Sidebar-3
Ads-Sidebar-3
Ads-Top-1
Ads-Top-2