শিরোনাম:

প্রকাশ্যে দুই ছাত্রীকে বিবস্ত্র করলেন শিক্ষিকা

ভারত ডেস্ক, ব্রেকিংনিউজ.কম.বিডি
প্রকাশিত : রবিবার, ১৮ জুন ২০১৭, ০২:৪১
অ-অ+
প্রকাশ্যে দুই ছাত্রীকে বিবস্ত্র করলেন শিক্ষিকা
ফাইল ফটো

ঢাকা: স্কুল থেকেই শিক্ষার্থীদের পোশাক সরবরাহ করা হয়। এ জন্য শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকাও নেয়া হয়। কিন্তু অভাবের সংসারে স্কুল পড়ুয়া দুই মেয়ের পোশাকের টাকা জমা দিতে দেরি হওয়ায় তার সামনেই তার দুই মেয়ের শরীর থেকে পোশাক খুলে নিয়েছেন শিক্ষিকা। গরিব হলেও বাবা হিসেবে বিষয়টি দারুণ আত্মসম্মানে লেগেছে ওই দুই ছাত্রীর বাবা চুনচুন শাহর।

এ নিয়ে সুরাহা চেয়ে মেয়েদের সঙ্গে নিয়ে তিনি স্কুলের অধ্যক্ষের কাছে গেলে অধ্যক্ষ বিষয়টি এড়িয়ে যান। এক পর্যায়ে তিনি ওই শিক্ষিকা ও অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করেন। অভিযোগের ভিত্তিতে ইতোমধ্যে শিক্ষিকা ও অধ্যক্ষকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তবে অভিযোগ অস্বীকার করেছেন ওই স্কুলের গ্রেফতার অধ্যক্ষ।

গেল শুক্রবার ভারতের বিহার রাজ্যের বেগুসারাই জেলার বেসরকারি একটি স্কুলে এ ঘটনা ঘটেছে। ভারতের শীর্ষস্থানীয় গণমাধ্যম হিন্দুস্থান টাইমসের খবরে বলা হয়, ওই শিক্ষার্থী সম্পর্কে আপন বোন। তারা বেগুসারাই জেলার সিক্রাউলা গ্রামের বি আর অ্যাডুকেশন একাডেমি নামে ওই স্কুলে প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণিতে পড়ে। 

এদিকে গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করে রাজ্যের পুলিশ জানিয়েছে, শুক্রবার মেয়েদের স্কুল থেকে আনতে যান চুনু শাহ। এ সময় শ্রেণিশিক্ষিকা তাকে ডেকে পাঠালে তিনি দেখা করেন। তখন তাতে দুই মেয়ের পোশাকের টাকা জমা দিলে বলা হলে তিনি কয়েকদিন সময় চান। কিন্তু ওই শিক্ষিকা কোনও কিছুর তোয়াক্কা না করে তৎক্ষণাত সবার সামনে ওই দুই ছাত্রীর স্কুলপোশাক খুলে নেন। এতে বাবা চুনু শাহর মতো দুই বোনও চরম অপমান বোধ করে। 

এরই ধারাবাহিকায় অভিযুক্ত শিক্ষিকা ও স্কুলের অধ্যক্ষকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এদিকে ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে অপরাধীদের কঠোর শাস্তি দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী অশোক চৌধুরী।

ব্রেকিংনিউজ/ এমআর